• ঢাকা

  •  শুক্রবার, মে ২৪, ২০২৪

ভিনদেশ

পর্নো তারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলের মামলায় দোষী সাব্যস্ত ট্রাম্প

নিউজ ডেস্ক:

 আপডেট: ০৯:১৫, ৩১ মার্চ ২০২৩

পর্নো তারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলের মামলায় দোষী সাব্যস্ত ট্রাম্প

যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প সাবেক পর্নো তারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে দীর্ঘ তদন্ত শেষে দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন। ডোনাল্ড ট্রাম্প মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের প্রথম প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট, যিনি ফৌজদারি বিচারের মুখোমুখি হয়েছেন। তবে তার বিরুদ্ধে অভিযোগগুলো প্রকাশ করা হয়নি। 

২০১৬ সালে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে পর্ন তারকা স্টর্মি ড্যানিয়েলসকে ট্রাম্পের ব্যক্তিগত আইনজীবীর অর্থ প্রদানের বিষয়টি বছরব্যাপী তদন্তের পর নিউইয়র্কের ম্যানহাটনে একটি গ্র্যান্ড জুরি তাকে অভিযুক্ত করেছেন।

আগামী সপ্তাহের শুরুতে নিউইয়র্কের ম্যানহাটন জেলা অ্যাটর্নি অফিসে আত্মসমর্পণ করার সময় ট্রাম্পের আঙুলের ছাপ এবং ছবি তোলা হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

সাবেক পর্নো তারকা স্টর্মির ড্যানিয়েল জানান, সম্পর্ক নিয়ে মুখ না খুলতে ট্রাম্পের সাবেক আইনজীবী মাইকেল কোহেন তাকে এক লাখ ৩০ হাজার ডলার দিয়েছিলেন। তবে এ সম্পর্কের বিষয়টি বারবার অস্বীকার করে আসছেন ট্রাম্প। তার দাবি, রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত হয়ে তার বিরুদ্ধে মামলাটি করা হয়েছে।

এর আগে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড নিজেই শঙ্কা প্রকাশ করে বলেছেন, তিনি গ্রেপ্তার হতে পারেন। গত ১৮ মার্চ নিজের ট্রুথ সোশ্যাল প্ল্যাটফর্মে একটি পোস্টে, ট্রাম্প তার তার সমর্থকদের প্রতিবাদের আহ্বান জানিয়েছেন।

ন্যাশনাল সিকিউরিটি কনসালট্যান্ট ডেভিড বোলগার বলেছেন, এটি গ্র্যান্ড জুরি, আলাদা ভাবে নির্বাচিত নাগরিকদের একটি দল। যারা ট্রাম্পকে অভিযুক্ত করার পক্ষে ভোট দিয়েছেন তারা রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বী নয়।

স্টর্মি ড্যানিয়েলসের প্রকৃত নাম স্টেফানি ক্লিফোর্ড। যুক্তরাষ্ট্রের লুজিয়ানায় ১৯৭৯ সালে জন্মগ্রহণ করেছেন তিনি। তার বেড়ে ওঠা লুজিয়ানার ব্যাটন রুজের একটি অপেক্ষাকৃত দরিদ্র পাড়ায়। ছোটবেলায় তিনি ঘোড়ায় চড়তে ও লেখালেখি করতে পছন্দ করতেন। 

পর্ণ ছবির ইন্ডাস্ট্রিতে তিনি সম্পৃক্ত হন ২০০৪ সালে, সেখানে তার নাম স্টর্মি ড্যানিয়েলস। হুইস্কির নামকরা ব্র্যান্ড জ্যাক ড্যানিয়েলস থেকে একটি অংশ তিনি নিজের নামের সাথে বেছে নিয়েছেন নিজেই।

তিনি বলেন, ‘ছোটবেলায় আমার স্বপ্ন ছিল বড় সাংবাদিক হওয়ার। আমি খুব চঞ্চল ও দুষ্টু প্রকৃতির ছিলাম। তবে আমি খুব একটা জনপ্রিয় ছিলাম না।’

তবে তার সাংবাদিক হওয়ার স্বপ্ন পূরণ হয়নি। ঘটনাচক্রে জড়িয়ে পড়েন পর্নো ইন্ডাস্ট্রিতে। এই ইন্ডাস্ট্রিতে কাজ করার আগে মাত্র ১৭ বছর বয়সে প্রথম তার স্ট্রিপিং (নগ্ন হওয়া) করার অভিজ্ঞতা হয়েছিল বলে জানিয়েছেন স্টর্মি। পরে তিনি গেইসমারের স্থানীয় গোল্ড ক্লাবে কাজ শুরু করেন। পর্নো ইন্ডাস্ট্রিতে জনপ্রিয় হওয়ার পাশাপাশি তিনি অসংখ্য পুরস্কার জিতেছেন।

তিনি বেশ কয়েকটি মূলধারার চলচ্চিত্রেও অভিনয় করেছেন। ২০১০ সালে তিনি লুসিয়ানার রিপাবলিকান সিনেট মনোনয়নের জন্য প্রতিযোগিতা করে রাজনীতিতেও নাম লেখিয়েছিলেন।

ড্যানিয়েলস দাবি, ট্রাম্পের সাথে তার সম্পর্ক শুরু হয়েছিলো ২০০৬ সালে।  ওই বছর জুলাইয়ে একটি গলফ টুর্নামেন্টে ট্রাম্পের সঙ্গে দেখা হয়েছিল তার। ক্যালিফোর্নিয়া ও নেভাডার রিসোর্ট এলাকার লেক তাহো’র হোটেল কক্ষে তারা যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হন।

ট্রাম্পের সঙ্গে ব্যক্তিগত সম্পর্কের বিষয়টি তিনি প্রথম প্রকাশ করেন ২০১১ সালে। সেসময় নিজের আত্মজীবনী ‘ফুল ডিসক্লোজার’ নিয়ে সাপ্তাহিক ম্যাগাজিন ‘ইন টাচ’ এর সঙ্গে আলাপে বিষয়টি নিয়ে তিনি কথা বলেন।

ড্যানিয়েলসের দাবি, ট্রাম্পের সঙ্গে তার যৌন সম্পর্ক ছিল। ২০১৬ সালে মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগে ওই বিষয়ে মুখ না খুলতে তাকে ১ লাখ ৩০ হাজার ডলার দিয়েছিলেন ট্রাম্পের আইনজীবী।

মার্চ ৩১, ২০২৩

এসবিডি/এবি/

মন্তব্য করুন: